Saturday, October 29, 2011

বিসর্জন

আমার বিসর্জনের গল্প শুনবে তুমি..
সে ছিল এক আপনভোলা মানুষ
গঙ্গার পাড় থেকে একতাল আমায় কুড়িয়ে নিল একদিন,
নিয়ে চলল ঘরে-
তারপর ভেজা আঙুলের ছাপে গভীর হল রেখা
চুইয়ে পড়া আদর শরীরে প্রবেশ করাল নারীত্ব,
ফুলের গন্ধ, ধূপের গন্ধ রক্ত মাংসের গন্ধকে ধুইয়ে দিল
দেবী প্রতিমা করে রাখতেই পারতো কাছে-
একদিন কি ভূত মাথায় চাপল কে জানে
বিসর্জন দিয়ে এল-
সেই থেকে গঙ্গার পাড়ে পরে আছি
ফ্যালফ্যাল করে তাকিয়ে দেখি
এ ঘাটে তোমার রোজ আসাযাওয়া,
কেমন করে আবার ছাপ ফেললে বলতো
মনের দাগের রঙগুলো স্নেহের তুলিতে বুলিয়ে
সাজাতে শুরু করলে
তোমার ঘরে নিয়ে যাবে না আমায়?
ঘাটের ভিজে হাওয়া, ঢেউয়ের শব্দে
আমার জন্মাতে বড় ভয় করে
না হয় প্রতিমা বানিয়ে রেখে দিয়ো
তোমার কুলুঙ্গি ভরা ধূপের গন্ধে
সে কি চললে কোথায়?....
এখনো শুকোতে যে ঢের দেরী,
তোমার ঘরে নিয়ে যাবে না আমায়?
চললে কোথায়.....
মাঝিরা বলছিল আজ রাতে জোয়ার আসবে

চলে গেলে........
অসম্পূর্ণ প্রতিমার বিসর্জন দেখেনি
এ ঘাটের মানুষ-
আজ দেখবে।।

No comments:

Post a Comment